রিমালের মতো দূর্যোগে আমার বানারীপাড়ার জনগণ না খেয়ে থাকবে না- গোলাম ফারুক

সাব্বির হোসেন,বানারীপাড়া(বরিশাল)//

ঘূর্ণিঝড় রিমালে সারাদেশের ন্যায় বরিশালের সন্ধ্যা নদীর তীরে বানারীপাড়ায় সর্বোচ্চ প্রকোপ হানে।গত ২৬শে মে রবিবার আবহাওয়া অধিদপ্তরের এক বিজ্ঞপ্তিতে জানা যায় বরিশালে ১০ নম্বর মহা বিপদ সংকেতের অধীনে। এর পরই দিনব্যাপী জিরি জিরি বৃষ্টি ও সন্ধ্যা নাগাদ ঘূর্ণিঝড় রিমাল ৯০ থেকে ১২০ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানে।বানারীপাড়ায় ২৭শে মে সোমবার ৭-৮ ফুট জলচ্ছাস দেখা যায় এতে উপজেলাটির নব্বই শতাংশ মানুষ আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হয়। এদিকে বন্যা চলাকালীন সময়ে সর্বোচ্চ ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা গুলোতে পরিদর্শন ও শুঁকনো খাবার বিতরণ করে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গোলাম ফারুক। বানারীপাড়া পৌর শহরের নিচু এলাকা দক্ষিণ নাজিরপুরে অবস্থান কালে গোলাম ফারুক বলেন, আমার এলাকার জনগণ দূর্যোগের কড়াল ছোবলে পড়েছে এতে অনেকে সর্বস্ব হারিয়েছে তাই আমি সংকটকালেও সবার পাশে থাকতে চাই।এছাড়াও তিনি আরো বলেন বানারীপাড়ার জনগণ না খেয়ে থাকবে না। এদিকে এলাকার যুব সমাজের উদ্যোগে শুকনো খাবার ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে তুলে দেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গোলাম ফারুক ও প্যানেল মেয়র মনির হোসেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *