সিরাজগঞ্জে নজর কাড়ছে ‘ব্রাজিল বাড়ি’

 সাব্বির মির্জা স্টাফ রিপোর্টার

সিরাজগঞ্জ শহরও মেতে উঠছে বিশ্বকাপ উন্মাদনায়। বিশ্বকাপে কে জিতবে কে হারবে তা নিয়ে কিশোর থেকে শুরু করে যুবক-বৃদ্ধদের মধ্যেও চলছে মুখরোচক আলোচনা। নিজ নিজ দলের সামর্থ্য যোগ্যতা ও অতীত রেকর্ড নিয়ে তর্কযুদ্ধের যেন শেষ নেই। বিশেষ করে বিশ্ব ফুটবলের দুই দল ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনার সমর্থকদের উৎসাহটা বেশি লক্ষ্য করা যাচ্ছে।

প্রিয় দলের বিশাল আকৃতির পতাকা নিজ বাড়িতে টাঙানোর পাশাপাশি টি-শার্ট ও ক্যাপ পরে ঘুরছেন অনেকেই। তবে শহরজুড়ে সবচেয়ে বেশি আলোচনা হচ্ছে লিটন সরকারের ব্রাজিল বাড়ি ও ব্রাজিল গাড়ি নিয়ে।

শহরের মোক্তারপাড়া এলাকার বাসিন্দা পরিবহন ব্যবসায়ী লিটন সরকার নিজ বাড়ির নাম দিয়েছেন ব্রাজিল বাড়ি। পুরো বাড়ি ব্রাজিলের পতাকার রঙে হলুদ আর সবুজে রাঙিয়েছেন তিনি। পাশাপাশি তার মালিকানাধীন একটি যাত্রীবাহী বাসকেও ব্রাজিলের পতাকার রঙে সাজিয়েছেন।

আজ বুধবার সরেজমিনে মোক্তারপাড়া লিটন সরকারের বাড়ি গেলে দেখা যায় তার দ্বিতল বাড়িটির সব দেয়াল হলুদ ও সবুজ রঙে রাঙানো। দেয়ালগুলো জুড়ে শোভা পাচ্ছে ব্রাজিলের পতাকা। এমনকি দোতলায় ওঠার সিঁড়ির দু’পাশেও রয়েছে ব্রাজিলের পতাকা।

তবে বাড়ির প্রধান ফটকটি বাংলাদেশের পতাকার আদলে লাল-সবুজে আঁকা হয়েছে। এ ছাড়া দ্বিতীয় তলার দেয়ালে বাংলাদেশ-ব্রাজিলের ফ্রেন্ডশিপের নিদর্শন হিসেবে দুই দেশের পতাকা সম্বলিত হাতে হাতে হ্যান্ডশেকের প্রতিকৃতি অঙ্কন করেছেন।

লিটন সরকারের এই ব্রাজিল বাড়ি দেখতে প্রতিদিনই বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ ভিড় জমাচ্ছেন। ব্রাজিল ভক্ত ছাড়া আর্জেন্টিনার সাপোর্টারারও কৌতূহল নিয়ে দেখতে আসছেন এই বাড়িটি।

অপরদিকে নিউ ঢাকা রোডে অভি এন্টারপ্রাইজের কাউন্টারে গিয়ে দেখা যায়, লিটন সরকারের মালিকানাধীন যাত্রীবাহী বাসটিকেও সাজানো হয়েছে ব্রাজিলের পতাকার রঙে। গাড়ির চালকসহ স্টাফগুলোও রেখেছেন ব্রাজিলের সমর্থক। পাশাপাশি তিনি ব্রাজিল সমর্থকদের টি-শার্ট বিতরণ করছেন।

ব্রাজিল বাড়ি দেখতে আসা শিক্ষার্থী, যুবক ও পেশাজীবীদের সঙ্গে কথা বললে তারা বলেন, লিটন সরকারের এই বাড়িটি দেখতে খুবই সুন্দর। তিনি সুন্দর করে ব্রাজিলের পতাকার রঙে বাড়িটি সাজিয়েছেন। তার বাড়ি দেখেই মনে হবে তিনি ব্রাজিলের একনিষ্ঠ একজন ভক্ত।

ব্রাজিল বাড়ি দেখতে এসে উচ্ছ্বসিত পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানির কর্মচারী আবু আলী বলেন, ‘এবার ব্রাজিল কাপ নেবে। ব্রাজিল একটি শক্তিশালী দল, এ দলকে এবার কেউ হারাতে পারবে না।’

প্রিয় দলের জন্য শুভ কামনা জানিয়ে স্কুলছাত্র সোহান বলেন, ‘শিশুকাল থেকে ব্রাজিলের খেলা দেখি, ইনশাল্লাহ এবারও সব খেলা দেখব।’

আর্জেন্টিনার সমর্থক এক কলেজছাত্র বলেন, ‘আমি আর্জেন্টিনার সাপোর্টার হলেও লিটন সরকারের এই বাড়িটি দেখতে ভালো লাগে। তবে আমি চাই আর্জেন্টিনা কাপ জিতুক।’

অভি এন্টারপ্রাইজের চালক শরীফ বলেন, ‘আমার মহাজন ব্রাজিল ভক্ত। তিনি ব্রাজিলের জন্য ব্যানার ফেস্টুন দিয়েছেন। আমরাও ব্রাজিল ভক্ত। আমরা ব্রাজিলের জয় চাই।’

ব্রাজিল বাড়ি ও ব্রাজিল গাড়ির মালিক লিটন সরকার বলেন,  ‘ব্রাজিলের খেলা ভালো লাগে, ছোট থেকেই ব্রাজিলের খেলা দেখি। আমি ব্রাজিলকে ভালোবাসি। আমি ব্রাজিলের গেঞ্জি বানিয়েছি, ব্রাজিল বাড়ি করেছি, ব্রাজিল গাড়ি করেছি, ঢাকা টেকনিক্যাল মোড়ে বিশাল বিশাল ব্যানার লাগিয়েছি। সিরাজগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে পতাকা লাগিয়েছি। আমি আশাবাদী ব্রাজিল এবার ষষ্ঠবারের মতো বিশ্বকাপ নেবে।’

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *